নির্মমভাবে বিড়াল ছানা হত‌্যার দায়ে কলেজ ছাত্রীর নামে আদালতে চার্জশীট দাখিল করলো মুগদা থানার এস আই নয়ন দেবনাথ

খিলগাঁও মডেল স্কুল অ্যান্ড কলেজের একাদশ শ্রেণির ছাত্রী ইসরাত জাহান মেহজাবিন দুদিন আগে দুই দিন বয়সি একটি বিড়াল ছানা হত্যা করে। ইসরাত নামের ঐ কলেজছাত্রী বিড়ালছানাটি হত্যার সময় তার ভিডিও ধারণ করে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেজবুকে পোস্ট করায় তা ভাইরাল হয়ে উঠে। তবে এই নিষ্ঠুরতার জন্য তার বিরুদ্ধে কেয়ার ফর পাওয়ার নামে একটি সংগঠন এর মহাসচিব মিস্টার জাহিদ হাসান প্রাণির প্রতি নিষ্ঠুরতা আইন, ১৯২০ সালের ৭ ধারায় মামলা দায়ের করেন। জাহিদ হাসানের সংগঠন কেয়ার ফর পাওয়ার বন্যপ্রাণী নিয়ে কাজ করেন।

মিস্টার জাহিদ হাসান এর অভিযোগের প্রেক্ষিতে কলেজ ছাত্রী ইসরাত জাহান মেহজাবিনের বিরুদ্ধে মুগদা থানার এস আই নয়ন দেবনাথ ঢাকার সি.এম.এম আদালতে এ চার্জশীট (অভিযোগপত্র) দাখিল করেন। আগামী ৯ জুলাই চার্জশীট গ্রহণের জন্য পরবর্তী তারিখ ধার্য রয়েছে। বাংলাদেশে এই প্রথম কোন বিড়াল ছানা বা প্রানী হত্যার বিষয়ে কোন তদন্ত কর্মকর্তা চার্জশীট প্রদান করলো।

মামলা হওয়ার পর ইশরাত জাহানকে গ্রেফতার করে ঢাকার সি.এম.এম আদালতে হাজির করে পুলিশ। এ সময় মামলার তদন্ত শেষ না হওয়া পর্যন্ত তাকে কারাগারে আটক রাখার আবেদন করেন মামলা তদন্তকারী কর্মকর্তা মুগদা থানার সাব ইন্সপেকটর নয়ন দেবনাথ। ইসরাত জাহানের আইনজীবী তার মক্কেলের জামিনের জন্য আবেদন করেন। অভিযোগের শুনানীতে আসামী আদালতে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দেন। তিনি দাবী করেন ক্লাসের প্রাকটিক্যাল এর জন্য তিনি এটা অনুশীলন করেছিলেন। অভিযোগ শুনানি শেষে মহানগর হাকিম ধীমান ঘোষ আসামীর জামিন আবেদন মঞ্জুর করেন।