১০+ বছর বয়সী নাগরিক নিবন্ধন ও জাতীয় পরিচয়পত্র প্রদান কার্যক্রম শুরুর পরিকল্পনা

জাতীয় পরিচয় নিবন্ধন আইন সংশোধন, ২০১৩ এর ৫ (২) ধারায় অর্পিত ক্ষমতাবলে নির্বাচন কমিশন শীঘ্রই শুরু করতে যাচ্ছে সকল বয়সের নাগরিকদের পরিচয় নিবন্ধন ও জাতীয় পরিচয়পত্র প্রদানের কার্যক্রম। এই কার্যক্রম শুরু করার জন্য নির্বাচন কমিশন একটি পাইলট কর্মসূচী করতে যাচ্ছে। পাইলট কর্মসূচীতে কয়েকটি মাধ্যমিক বিদ্যালয়কে বেছে নিয়ে ১০+ বছরের ৬ষ্ঠ হতে দশম শ্রেনীর ছাত্র-ছাত্রীদের নিবন্ধনের মাধ্যমে এই কর্মসূচী শুরু করতে যাচ্ছে।

পাইলট কর্মসূচীতে শুধু মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের নিবন্ধন করা হলেও পাইলট কর্মসূচীর পর সকল মাধ্যমিক পর্যায়ের বিদ্যালয় ও মাদ্রাসাসহ বাদপড়াদের জন্য ইউনিয়ন ভিত্তিক কার্যক্রম শুরু করবেন। এছাড়া ১০+ শিশুদের উপজেলা/থানা নির্বাচন অফিসে নিবন্ধনের জন্য ব্যবস্থা রাখা হবে যাতে প্রযোজন হলে এই বয়সী শিশুদের মা-বাবারা নির্বাচন অফিসে গিয়ে তাদের সন্তানদের পরিচয় নিবন্ধন করাতে পারেন।

এই কার্যক্রমে ১০+ বয়সীদের সকল বায়োমেট্রিক ডাটা গ্রহন করার বিষয়ে পদক্ষেপ নিচ্ছে নির্বাচন কমিশনের জাতীয় পরিচয় নিবন্ধন অনুবিভাগ।