জাতীয় পরিচয়পত্র সংশোধনের নিয়মাবলী

নিয়ম জানা না থাকলে অনেকেরই হিমশিম খেতে হয় জাতীয় পরিচয়পত্র সংশোধন নিয়ে। জাতীয় পরিচয়পত্র সংশোধনের কার্যক্রম এখন অনলাইনে সম্পন্ন করার ব্যবস্থা করেছে এনআইডি কর্তৃপক্ষ। আবেদন জমা হতে শুরু করে কার্ড পাওয়া পর্যন্ত সবই করা যায় অনলাইন পোর্টাল এর মাধ্যমে।

অনলাইন সিস্টেমে এনআইডি সংশোধনের আবেদন করতে https://services.nidw.gov.bd/ সাইটের রেজিস্ট্রার অপশনে গিয়ে এনআইডি নম্বর, জন্ম তারিথ ও মোবাইল নম্বর দিয়ে প্রথমে রেজিস্ট্রার করতে হবে। অতপর লগইন অপশনে গিয়ে এনআইডি নম্বরকে ইউজার আইডি এবং রেজিস্ট্রার করার সময় প্রদত্ত জেনারেটেড পাসওয়ার্ড দিয়ে লগইন করতে হবে। প্রোফাইল এডিট অপশন হতে প্রয়োজনীয় তথ্য এডিট করে চাহিত সংশোধনীর সাথে রিলেটেড ডকুমেন্টস সমূহ স্ক্যান/ছবি তুলে এ্যাটাস করতে হবে। আগে থেকে সংশোধনের আবেদন ফি জমা না দেয়া থাকলে https://services.nidw.gov.bd/fees লিংক হতে ফি এর পরিমাণ জেনে অথবা আবেদন সাবমিট করার প্রাক্কালে প্রদর্শিত ফি এর সমপরিমান ফি নির্ধারিত ব্যাংকিং সিস্টেমের মাধ্যমে পরিশোধ করতে হবে। ফি পরিশোধ করার পূর্বে আবেদন সাবমিট করলে আবেদনটি ড্রাফট অবস্থায় থেকে যাবে। এজন্য সাবমিটের পূর্বে অবশ্যই ফি জমা দিয়ে অতপর আবেদন সাবমিট করতে হবে। আবেদন সাবমিট করার পর এর একটি জেনারেটেড ফরমের কপিও ডাউনলোড করে নিতে পারেন। তবে অনলাইনে আবেদন করতে অসমর্থ হলে নিজ নিজ ভোটার এলাকা অর্থাৎ যেখানে ভোটার সেখানকার উপজেলা/থানা নির্বাচন অফিসে নির্ধারিত আবেদন ফরম পূরণ করে প্রযোজ্য সরকারী ফি জমা দিয়ে সংশোধনের প্রমানপত্র হিসেবে উপযুক্ত ডকুমেন্টসহ (যেমন: এসএসসি/সমমানের সনদ বা অন্য ডকুমেন্ট যা সংশোধনের সাথে প্রযোজ্য) জমা দিতে হয়।

আবেদনকারীর শিক্ষাগত যোগ্যতা যদি এসএসসি বা তার উপর হয় এবং সংশোধনের বিষয় যদি হয় সেই সম্পর্কিত তাহলে অবশ্যই এসএসসি সনদ প্রয়োজন হয়। তবে কোন আবেদনকারী যদি এসএসসি পাশ না হয় তাহলে জন্ম সনদ, পাসপোর্ট বা অন্য কোন উপযুক্ত ডকুমেন্টসহ আবেদন জমা দেয়া যায়। তবে যে কারণে সংশোধন চাওয়া হচ্ছে তার উপযুক্ত কারণ থাকতে হবে অবশ্যই।

সংশোধনের যৌক্তিকতা প্রমান না করতে পারলে সারবত্তাহীন আবেদন গ্রহনযোগ্য মর্মে বিবেচিত হয় না এনআইডি কর্তৃপক্ষের নিকট। এজন্য এমন সব আবেদন বাতিল বা নামঞ্জুর হয়ে থাকে কর্তৃপক্ষের নিকট।

25 Replies to “জাতীয় পরিচয়পত্র সংশোধনের নিয়মাবলী”

  1. আমি আজ দেড় বছর ধরে সংশোধন এর জন্য ঘুরছি কাজ হচ্ছেনা, আগারগাও ও গিয়েছি লাভ হয়নি, আমার সকল সার্টিফিকেট এর সাথে আমার এনআইডির মায়ের নাম মিল নেই, আবার আমার এনআইডি যদি সার্টিফিকেট এর সাথে মিল রেখে সংশোধন করতে যাই তাহলেও আমার মা, বাবা, বোনদের এনআইডিতে মায়ের নামের সাথে বেমিল হয়ে যায়, কিন্তু আমি চাচ্ছি আমার সার্টিফিকেট এর সাথে মিল রেখে আমার এনআইডি কার্ডে মায়ের নাম সংশোধন করতে, কিন্তু হচ্ছেনা

  2. আমি নিজেই অনলাইনে ভোটার আইডি কার্ড সংশোধন এর আবেদন করেছি। কিন্তু ডকুমেন্ট আপলোড এর সময় ভুল হইছিল এবং আমার কোনো সার্টিফিকেট নাই। তাই আমি এখন এই আবেদনটি বাতিল করতে চাই।

  3. আমার আইডি কার্ড এ বাবার নাম আলি আহমেদ দেওয়া কিন্তু বাবার আইডি কার্ড এ নাম দেওয়া আলি আহমেদ গাজী এতে কি কোনো সমস্যা হবে?

  4. ঠিকানা পরিবর্তনের জন্য কি কি ডকুমেন্টস লাগবে? সত্যায়িত লাগবে?

  5. আমার আম্মুর NID card এর সাথে আমার সার্টিফিকেট এর নামে মিল নেই।
    আমার আম্মুর NID card নাম আছে মোছঃমিলি খাতুন
    কিন্তু আমার সব সার্টিফিকেটে নাম আছে মোছাঃকহিনুর আক্তার।
    এখন আমার আম্মুর NID card নাম সংশোধনী করতে হবে এর জন্য আপনার পরামর্শটা আমার কাছে খুবই জরুরী স্যার
    Sir,please help me out of this danger way ..

    1. আপনার আম্মুকে নাম পরিবর্তন/সংশোধনের জন্য আবেদন দিতে হবে। যেহেতু নাম পরিবর্তন সেহেতু তদন্ত সাপেক্ষে এটি নিষ্পত্তি করবে।

  6. আমার ভোটার এলাকার নাম ভুল আসছে। NID: 1991159060300107. ভোটার এলাকা হাজিরপুল এর পরিবর্তে হাজীপাড়া হবে।অনেকবার নির্বাচন কমিশনার অফিসে গিয়েছে কিন্তু কাজ হয়নি। দয়া করে সাহায্য করুন।

    1. আপনাকে ফরম-১৩ পূরণ করে উপজেলা নির্বাচন অফিসে গিয়ে স্থানান্তরের জন্য আবেদন করতে হবে।

  7. আমার ভোটার আইডিতে ওয়ার্ড নং ভুল আছে।

  8. Amar id card o card o certificate e amar ammur name asce=কোহিনুর আক্তার।কিন্তু আম্মুর আইডি কার্ড এ আছে ( কহিনুর আক্তার) যে কারনে ইংরেজি বানান টা ও মিলে না।আমি তাই আমার আম্মুর আইডি কার্ড টা অনলাইন য়ে সংশোধন করতে চাই। অম্মার কোন সাটিফিকেট নাই।এখন আমি কি কিমজমা দিলে তারাতারি সংশোধন হবে।

  9. স্থায়ী ঠিকানা পরিবর্তনের উপায় কি?

      1. জেলা নির্বাচন অফিস বলছে যে স্থায়ী ঠিকানা পরিবর্তন কার্যক্রম নাকি এখন বন্ধ। কিন্তু আপনারা বলছেন যে স্থায়ী ঠিকানা অনলাইনে সংশোধন করা যাবে। দুই রকম তথ্যের কারণে কনফিউজড হয়ে যাচ্ছি। দয়া করে সঠিক তথ্যটি দিন।
        কী কী ডকুমেন্ট স্ক্যান করে আপলোড করতে হবে?

        1. কোন কনফিউশন নাই আমার আর্টিকেল সমূহ পড়ুণ সব পরিস্কার হয়ে যাবে।

  10. জেলা নির্বাচন অফিস বলছে যে স্থায়ী ঠিকানা পরিবর্তন কার্যক্রম নাকি এখন বন্ধ। কিন্তু আপনারা বলছেন যে স্থায়ী ঠিকানা অনলাইনে সংশোধন করা যাবে। দুই রকম তথ্যের কারণে কনফিউজড হয়ে যাচ্ছি। দয়া করে সঠিক তথ্যটি দিন।
    কী কী ডকুমেন্ট স্ক্যান করে আপলোড করতে হবে?

    1. নাগরিক সনদ, চেয়ারম্যানের পদ প্রত্যয়ন, পারিবারিক/ওয়ারিশ সনদ, বাবা মা ভাই বোনদের আইবি কপি সহ স্থায়ী ঠিকানা সমানে আরো মে ডকুমেন্টস আপনার কাছে আছে তা জমা দিন।

    2. অনলাইন পদ্ধতিতে আবেদন জমা দিতে কারো কাছে শুনে আবেদন করার প্রয়োজন নাই। শুধু দেখা প্রয়োজন আবেদনটি সাবমিট করা যায় কিনা? যদি আবেদন সাবমিট করার সিস্টেম থাকে তাহলে বুঝে নিতে হবে এটা সর্বোচ্চ কর্তৃপক্ষের সিদ্ধান্ত বা সম্মতি না থাকলে তা সাবমিট করার অপশন থাকতো না। আবেদন নিষ্পত্তি এবং প্রয়োজনে তদন্ত প্রক্রিয়ায় সময়ের প্রয়োজন হতে পারে।

Comments are closed.